বাংলাদেশি ক্রিকেটভক্তরা পাবেন ক্রিকেটারদের শিশুদের ডিএনএ টেস্ট করার সুবিধা

১০৮২ পঠিত ... ১৪:৫৬, অক্টোবর ০১, ২০১৮

দেশের ক্রিটারদের প্রতি বাংলাদেশি ক্রিকেটভক্তদের ভালবাসা একটু যেন বেশি। সেই সাথে আগ্রহটাও বেশি তা বলাই বাহুল্য। ক্রিকেটভক্তদের এই অপার কৌতুহল মেটানোর জন্য বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড দিতে যাচ্ছে এক অভিনব সময়পোযোগী সুবিধা! এখন থেকে বাংলাদেশি ক্রিকেটভক্তরা চাইলেই তাদের পছন্দের ক্রিকেটারের সদ্য ভূমিষ্ট সন্তানের ডিএনএ টেস্ট করতে পারবে। জানতে পারবে কে ওই শিশুর আসল বাবা অথবা জন্মের সময় তার বয়স কত হয়েছিলো। 

ঘটনার সূত্রপাত পেসার তাসকিন আহমেদের এক ফেসবুক পোস্ট থেকে। নিজের সদ্য ভূমিষ্ট পুত্র সন্তানের সাথে সেলফি আপলোড দেয়ার সাথে সাথে তার ভক্তরা সেখানে কমেন্ট করতে শুরু করেন--বিয়ের বছর না পুরতেই কিভাবে বাবা হলেন তাসকিন? তারা কঠিন হিসাব করে তাসকিনকে দাঁড় করালেন কাঠগড়ায়।

এরপর তাসকিনকে হিসাব বুঝিয়ে দিতে হয়েছে পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে। ভক্তরা তাতেও শান্ত হতে পারেননি। আর একারনেই ডিএনএ টেস্টের ব্যাপারটা ভাবতে হয়েছে ক্রিকেট বোর্ডকে। 

এই সুবিধার আওতায় ভক্তরা এখন থেকে ক্রিকেটারদের সদ্য ভূমিষ্ট সন্তানের ডিএনএ টেস্টের রিপোর্ট দেখতে পারবে। একই সাথে কোনো ক্রিকেটারের স্ত্রী প্রেগন্যান্ট হওয়ার সাথে সাথে তারা হাতে পাবেন আল্ট্রাসনোগ্রামের একটি কপি। বিয়ে এবং বাচ্চা হওয়ার সময় এর মধ্যকার ব্যাবধান অযৌক্তিক হলে ক্রিকেটারকে জবাবদিহিতার মধ্যমে তা বুঝিয়ে দিতে হবে। 

এ ব্যাপারে ক্রিকেট বোর্ডের প্রেসিডেন্ট ফেসবুক লাইভে বলেন, 'ভক্তরা এখন থেকে তাদের অধিকার বুঝে পাবেন।' তিনি আরও বলেন, 'ভক্তরা চাইলে ব্যক্তিগত উদ্যোগে আকিকা দিয়ে ক্রিকেটারদের সন্তানদের নামও রাখতে পারবেন।'

অবশ্য ক্রিকেট ভক্তদের মাঝে মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা গেছে। অনেকে বাড়তি কিছু সুবিধাও চেয়েছেন। অনেকেই বলেছেন, ক্রিকেটারদের বিয়ের এক বছরের মধ্যে বাচ্চা নেয়াকে নিষিদ্ধ করা উচিত। তবে যদি নিতেই হয় তবে ফেসবুকে ভক্তদের মাঝে পোল ক্রিয়েট করে পোল রেজাল্ট অনুযায়ী ফ্যামিলি প্ল্যানিং করতে হবে। 

ডিএনএ টেস্টের এই সুবিধাটি দেশের ক্রিকেটারদের পাশাপাশি ভিনদেশী ফুটবলারদের ক্ষেত্রেও করা উচিত বলে মনে করেন অনেকে। এ বিষয়ে একজন ডিএনএ বিশেষজ্ঞ ভক্ত বলেন, 'আমি একজন মেসি ভক্ত। ও একটা জাদুকর। কিন্তু বিয়ের আগেই মেসির দুটি বাচ্চা হয়ে যাওয়ায় আমি তার ফেসবুক পেজে গিয়ে হিসাব চেয়েছিলাম। কিন্তু মেসি বাংলা পড়তে পারে না বলে কোনো হিসাব দেয়নি। তবুও মেসিকে আমার ভালো লাগে। কিন্তু তাসকিনের কাছ থেকে এটা আশা করি নাই!'

১০৮২ পঠিত ... ১৪:৫৬, অক্টোবর ০১, ২০১৮

Top