২০৪৫ সালে প্রধানমন্ত্রী হওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছেন পাকি অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ

১৮৩ পঠিত ... ২০:৪৬, জুন ২৭, ২০১৯

ওরে বাপ্রে! আরও একটা ম্যাচ জিতেছে পাকিস্তান!! (হাত তালি!)

ইংল্যান্ডকে হারিয়ে মোটামুটি ধরনের এটেনশন সিক করে এবার নিজেদের আনপ্রেডিক্টেবল স্বভাব-চরিত্রের আবারো প্রমাণ দিয়েছে পাকিস্তান! নিউজিল্যান্ডকে খুব কম্ফোর্টেবলভাবে ৬ উইকেটে হারিয়ে আপাতত বিশ্বকাপে আরও কিছুদিন ঝুলে থাকা নিশ্চিত করেছে পাকিরা। তবে ম্যাচ জয়ের চেয়েও বড় কথা, সম্প্রতি বহুল আলোচিত ‘৯২ বিশ্বকাপে পাকিস্তানের জয়-পরাজয়ের ধারার সাথে ১৯ বিশ্বকাপের ধারার মিল রক্ষা করতে সফল হয়েছে দলটি। 

আগামী ম্যাচগুলোতে জয়-পরাজয়ের ব্যালেন্সটাও কি রক্ষা করতে পারবে পাকিস্তান? তা নিয়ে জানা যায়নি দলটির কোনো পরিকল্পনা। তবে অবিশ্বস্ত একটি সূত্রে খবর পাওয়া গেছে, পাকিস্তানের ভবিষ্যৎ প্রধানমন্ত্রী হওয়ার প্রস্তুতি ইতোমধ্যেই নেয়া শুরু করেছেন পাকি অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ।

এর কারণ খুজতেও আপনাকে ফিরে যেতে হবে সেই ৯২-এ (রিসেন্ট সময়ে তো আর আপনি পাকিদের সাফল্য খুজলে পাবেন না, তাই না?)। বিশ্বকাপজয়ী দলের ক্যাপ্টেন ইমরান খান খেলার মাঠ ছেড়ে রাজনীতির মাঠে এসেও পেয়েছেন সর্বোচ্চ সাফল্য। বিশ্বকাপ জেতার ২৮ বছর পর নির্বাচিত হয়েছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী পদে। হিস্টোরি রিপিট করে যদি পাকিস্তান কোনভাবে এবারের বিশ্বকাপ জিতেই যায়, (পরে হাসেন, লাইনটা পড়ে শেষ করেন আগে) তাহলে এই রিপিটের জের ধরে সরফরাজও বসে যেতে পারেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর আসনে। 

বিশ্বাসে মেলায় বস্তু, তর্কে বহুদূর ('তাই বলে এতদূর?' এমন তর্কও করবেন না।) বিশ্বকাপ জেতার স্বপ্নে বিশ্বাস শুধু কাপেই কেন থেমে থাকবে? বিশ্বাসের পাগলা ঘোড়ায় চেপে তিনি শুরু করতে যাচ্ছেন ২৮ বছর পরের জাতীয় নির্বাচনের পরিকল্পনা।

তবে এরই মধ্যে জানা গেছে, নিদ্রাপ্রেমী সরফরাজ বালিশ মার্কা নিয়ে ২৮ বছর পর ২০৪৫ সালের জাতীয় নির্বাচনে দাঁড়ানোর প্রস্তুতি নেয়া শুরু করেছেন। প্রচারণার কাজে দীর্ঘদিনের অভিজ্ঞতাসম্পন্ন তারকা বাংলাদেশের চিত্রনায়ক ফেরদৌসকে ইংল্যান্ডে উড়িয়ে আনার গুজবও শোনা গেছে। ফেসবুকে স্টেডিয়ামের গ্যালারীতে ফেরদৌসের ছবি দেখিয়ে এই তথ্য নিশ্চিত করেছে কয়েকটি অজ্ঞাত সূত্র। 

এ ব্যাপারে সরফরাজের সাথে কথা বলতে পাকিস্তানের ড্রেসিং রুমে ঢুকতে চাইলেও সেখানে অনুমতি না পাওয়ায় দরজায় মুখ চেপে তার মতামত জানতে চায় eআরকির অরাজনৈতিক রিপোর্টাররা। দরজার পেছনে একজন নিজেকে সরফরাজ পরিচয় দিয়ে বলেন,’আসলে খেলার সময় আমাদের এবারের পারফর্মেন্সের সাথে ১৯৯২এর এতবার কম্পেয়ার করা দেখিয়েছে, কাপটা এবার জিতেই যাবো। টিভিতে তো আর মিথ্যা কিছু দেখায় না! আর কাপ জেতার পর ইমরান খানের মতো আমাকেও একটু রাজনীতির মাঠে নামতেই হয়। ট্র্যাডিশন তো ধরে রাখতে হবে।’ 

চিন্তাটা কি একটু বেশি ‘হাই’ লেভেলে চলে গেল না? এমন প্রশ্ন করতে সরফরাজ আরও তিনবার হাই তোলেন। 

তবে তিনি ইমরান খানকে আইডল মেনে আরো দুইটি বিয়ে করবেন কিনা তা জিজ্ঞেস করতেই তিনি একটু লজ্জাসূচক কাশি দিয়ে নিশ্চুপ হয়ে পড়েন। সবশেষে তুমুল একটা হাই তুলে হালকা জিরাতে ড্রেসিংরুমে চলে যান।

১৮৩ পঠিত ... ২০:৪৬, জুন ২৭, ২০১৯

Top