সেরা খেলোয়াড় বৃষ্টি না থাকায় ম্যাচ বাঁচাতে পারল না শ্রীলংকা

৮১ পঠিত ... ২৩:২৫, জুন ১৫, ২০১৯

বিশ্বকাপে নিজেদের পঞ্চম ম্যাচে সেরা খেলোয়াড়ের অনুপস্থিতিতে হেরে গেল শ্রীলংকা। আজ (১৫ জুন) লন্ডনের ওভালে অনুষ্ঠিত ম্যাচে বৃষ্টি না খেলায় অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে শ্রীলংকা হেরে যায় ৮৭ রানে।

বিশ্বকাপে প্রথম চার ম্যাচে আফগামিস্তানের বিরুদ্ধে একমাত্র জয় নিয়ে শ্রীলংকার পয়েন্ট সাকল্যে চার। প্রথম ম্যাচে বৃষ্টি না খেলায় নিউজিল্যান্ডের সাথে ১০ উইকেটে পরাজয়ের শিকার হয় শ্রীলংকা। দ্বিতীয় ম্যাচেই সহজ প্রতিপক্ষ আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে ম্যাচে বৃষ্টির দেখা পেয়ে ডাকওয়ার্থ ও লুইস পদ্ধতিতে জয় ছিনিয়ে নেয় লংকানরা। পাকিস্তান ও বাংলাদেশের সাথে পরের দুটি ম্যাচে বৃষ্টির দুর্দান্ত পারফরম্যান্সে নির্ভাবনায় একটি করে পয়েন্ট ছিনিয়ে নেয়।

আজ নিজেদের পঞ্চম ম্যাচে শক্তিশালী অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে তাই বৃষ্টির দিকে তাকিয়ে ছিল লংকানরা। কিন্তু তার অনুপস্থিতিতে ৮৭ রানের বড় ব্যবধানে ম্যাচটি হেরেই যেতে হয় তাদের। ম্যাচের আগে লংকান অধিনায়ক দিমুথ করুণারত্নের কপালে দেখা গিয়েছিল চিন্তার ভাঁজ। সে সময় তিনি eআরকিকে বলেছিলেন, ‘বিশ্বকাপে সাকিব আল হাসানের পর সবচেয়ে সেরা পারফরমার বৃষ্টি। আর আমাদের সৌভাগ্য সে খেলা আমাদের হয়ে। সবাই যখন ১১ জন নিয়ে মাঠে নামে, তখন আমরা নামি ১২ জন নিয়ে। আকাশ বাতাস কাঁপিয়ে আমাদের জন্য খেলে যায় বৃষ্টি।’ লন্ডনের রৌদ্রজ্জ্বল  আকাশের দিকে তাকিয়ে তিনি বলেন, ‘কিন্তু বুঝতে পারছি না এখনো ওর এত দেরি হচ্ছে কেন? ব্রিস্টল থেকে তো আমরা একসাথেই রওনা দিলাম লন্ডনের উদ্দেশ্যে।’

কিন্তু কোন এক অজানা কারণে ঢাকা, চট্টগ্রামসহ বাংলাদেশের আকাশে বৃষ্টিকে দেখা গেলেও লন্ডনের আকাশে ছিল না কোন বৃষ্টির সম্ভাবনা। তাই ম্যাচশেষে সংবাদ সম্মেলনে করুণারত্নে হারের দায় বৃষ্টির কাঁধে চাপিয়ে বলেন, ‘বৃষ্টি আমাদের সাথে বেইমানি করল। ওকে বললাম লন্ডনে আসার কথা, কিন্তু সে চলে গেল কার্ডিফে আফগানিস্তানকে সাহায্য করতে! সে থাকলেই ফিঞ্চের সেঞ্চুরি কোন কাজে আসত না। অথচ আমি ভাবছিলাম, ইনজুরির কারণে সে আসতে পারে নাই!’

ইংল্যান্ড বিশ্বকাপে দুই দলেরই পঞ্চম ম্যাচে প্রথম ইনিংসে টসে হেরে ব্যাট করতে নামে অস্ট্রেলিয়া। ওপেনিং জুটিতে ৮০ রান তুলে ফেললেও ওয়ার্নার ও খাজার উইকেটে একটু স্থবির হয় অজি ইনিংস। তবে সাবেক ক্যাপ্টেন স্টিভেন স্মিথের সাথে বর্তমান ক্যাপ্টেন অ্যারন ফিঞ্চের ১৭৩ রানের জুটিতে সুবিশাল রানের দিকে এগিয়ে যেতে থাকে অস্ট্রেলিয়া। ফিঞ্চের ১৫৩ ও স্মিথের ৭৩ রানকে সঙ্গী করে ৩৩৪ রান করে অস্ট্রেলিয়া। জবাব দিতে নেমে লংকান দুই ওপেনার করুণারত্নে কুশল পেরেরার ঝড়ো ব্যাটিংয়ে বৃষ্টির সাহায্য ছাড়াই ম্যাচে জয়ের আশা দেখতে থাকে লংকানরা। তবে পেরেরা ৫২ রানে আউট হলে নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারাতে থাকে শ্রীলংকা। দলীয় ১৮৬ রানে ব্যক্তিগত ৯৭ রানে আউট হন ক্যাপ্টেন করুণারত্নে। এরপর মিচেল স্টার্কের কল্যাণে ৮৭ রানে হেরে যায় শ্রীলংকা।

৮১ পঠিত ... ২৩:২৫, জুন ১৫, ২০১৯

Top