বৃষ্টির কারণে বাংলা একাডেমিতে বিঘ্নিত হলো বর্ষাবরণ অনুষ্ঠান

১৪১ পঠিত ... ২০:৪৯, জুন ১৫, ২০১৯

বর্ষাকাল অর্থাৎ আষাঢ়ের প্রথম দিবসে বৃষ্টিতে সাময়িকভাবে ‘পণ্ড’ হয়ে গেল বর্ষাবরণ অনুষ্ঠান। আজ ১৫ জুন (শনিবার) বাংলা একাডেমি প্রাঙ্গণে বাংলাদেশ উদীচী শিল্পীগোষ্ঠী আয়োজিত ‘বর্ষা উৎসব- ১৪২৬’ অনুষ্ঠান প্রবল আষাঢ়ে বৃষ্টিতে আক্রান্ত হয়ে পড়ে। পরে অবশ্য বৃষ্টি থামলে ডাকওর্থ এন্ড লুইস পদ্ধতিতে অনুষ্ঠান আবার শুরু হয়।

মেহেদি হাসান শুভ’র দেওয়া একটি ফেসবুক পোস্ট থেকে এই বৃষ্টিবিঘ্নিত বর্ষাবরণ অনুষ্ঠানের কথা জানা যায়। eআরকি প্রতিনিধির সাথে একান্ত সাক্ষাৎকারে তিনি জানান, আষাঢ়ের প্রথম দিবসে ভোর ছয়টায় শুরু হওয়া অনুষ্ঠানটি আচমকা বাঁধাপ্রাপ্ত হয় সকাল ৮টার দিকে ঝড়ো হাওয়া শুরু হলে। ঝড়ো হাওয়ার সাথে বর্ষা উৎসবকে সিক্ত করতে উপস্থিত হয় বৃষ্টির। বৃষ্টির উপস্থিতিতে আয়োজক ও দর্শকদের সবাই নজরুল মঞ্চ ছেড়ে আশ্রয় নেন বর্ধমান হাউজে। সকলকে বেশ অনেকক্ষণ বর্ধমান হাউজের বারান্দায় অপেক্ষায় রেখে অবশেষে বৃষ্টি থামলে পুনরায় শুরু হয় অনুষ্ঠান।

এই ঘটনা নিয়ে জানতে আমরা সরাসরি যোগাযোগ করি আষাঢ়ে বৃষ্টির সাথে। জানতে চাই, এতদিন পর তিনি কোথা থেকে এলেন? এমন প্রশ্নে কিছুটা আঘাতপ্রাপ্ত হয়ে তিনি বলেন, ‘আমি ছিলাম আশেপাশেই। ঢাকায় আসতে ইচ্ছা করে না। তাও ঈদের দিন ফাঁকা ঢাকা পেয়ে ঘুরতে এসেছিলাম। সেদিনও দেখি কেউ আমাকে পছন্দ করল না! গতকাল ফেসবুকে এই প্রোগ্রামের ইভেন্ট দেখলাম। তাই চলে আসলাম।’ কিন্তু তাকে দেখেই অনুষ্ঠান থেমে যাওয়ার ব্যাপারটি নিয়ে জিজ্ঞেস করলে এক পশলা বৃষ্টি ঝড়িয়ে তিনি বলেন, ‘বুঝতে পারছেন না কেন? আমিই হচ্ছি উৎসবের মধ্যমণি। আমি আসলে তো অনুষ্ঠান থামবেই। অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি আসলে সবাই দাঁড়িয়ে সম্মান জানায় না? তেমনটা হয়েছে আরকি।’

কিন্তু বৃষ্টির উপস্থিতিতে অনুষ্ঠান দীর্ঘক্ষণ থেমে ছিল। এতক্ষণের জন্য থেকে যাওয়ার প্রসঙ্গে বৃষ্টি বলেন, ‘আমিও ভাবলাম একটু গান-কবিতা শুনি, নাচ দেখি। কিন্তু তারা আমাকে যেন কিছুই দেখতে দিতে চায় না। তখন আমার মন অনেক খারাপ হয় বলে কেঁদে ফেলেছিলাম।’ বৃষ্টি এরপর eআরকির সাথে ক্রিকেট বিশ্বকাপ নিয়েও কথা বলেন। বিশ্বকাপে ক্রমাগত বৃষ্টি নিয়ে তিনি বলেন, ‘আমার এক কাজিন বিশ্বকাপ দেখতে ইংল্যান্ড গেছে। যে ম্যাচেই সে যায়, তখনই ফেসবুকে এতো এতো সমালোচনা। বৃষ্টি বলে কি আমরা মানুষ নই? আমাদের কি অধিকার নেই ক্রিকেট খেলা দেখার!’  

আয়োজকদের বরাত দিয়ে একটি অবিশ্বস্ত সূত্র জানায়, বৃষ্টি থেমে গেলে আয়োজকদের পক্ষ থেকে দুই আম্পায়ার ভেন্যু পরিদর্শন করে আবার অনুষ্ঠান শুরু হওয়ার নির্দেশ দেন। পরে ডাকওর্থ এন্ড লুইস পদ্ধতিতে অনুষ্ঠানের দৈর্ঘ্য কমিয়ে আনা হয়।

১৪১ পঠিত ... ২০:৪৯, জুন ১৫, ২০১৯

Top