সিলটি ভাষার বর্ণমালায় স্মার্টফোনে টাইপ করার সুবিধা নিয়ে এলো 'সিলটি নাগরী কি-বোর্ড'

৪৫০১ পঠিত ... ১৯:৪২, ফেব্রুয়ারি ০৭, ২০১৯

বাংলায় ভাষার বদলে যাওয়া নিয়ে একটা ছোট্ট কৌতুকের প্রচলন আছে। কৌতুকটা অনেকটা এমন- একটা কাক ঢাকা থেকে ‘কা কা’ ডাকতে ডাকতে উড়ে যাচ্ছিল, সিলেটে ঢুকে সে ‘খা খা’ করে ডাকতে লাগল। ছাপ্পান্ন হাজার বর্গমাইলের এই ছোট্ট দেশে মানুষ তো মানুষ, কাকেরও ভাষা বদলে যায় এক এলাকা থেকে অন্য এলাকায় গেলে। উত্তরবঙ্গের কোন মানুষ নোয়াখালী, সিলেট কিংবা চট্টগ্রাম গেলে অনেকটাই যেন অবুঝের মত বসে থাকতে হয়। অথচ সবগুলোকেই আমরা ভেবে নিই বাংলা ভাষার আলাদা সব আঞ্চলিক রূপ হিসেবে। কিন্তু সিলটিরা যা বলেন সেটি কিন্তু বাংলার কোন আঞ্চলিক রূপ না, একেবারেই আলাদা স্বতন্ত্র একটি ভাষা।

সিলটি ভাষার বর্ণমালা

এই ভাষার ইতিহাস থেকে দেখা যায়, এর প্রচলন শুধু সিলেটেই সীমাবদ্ধ নয়। ভারতের আসাম, ত্রিপুরা এবং মেঘালয়ের বহু সংখ্যক লোকের মাতৃভাষা সিলটি। দুনিয়ার অসংখ্য লিপিই কালের গর্ভে হারিয়ে গেছে। মুখের ভাষা সিলেটি থাকলেও লেখার পাতা থেকে নাগরী লিপিও সেই হারিয়ে যাওয়া পথের যাত্রী হয়েছে বহু আগে। তবে কারো কারো কল্যাণে এই ভাষার প্রদীপ এখনো জ্বলছে নিভু নিভু প্রদীপের মতো।

পৃথিবীতে প্রায় ৮ হাজার ভাষা রয়েছে। এর মধ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণ ভাষার সংখ্যা ৩ হাজার। এই ৩ হাজার ভাষার নিজস্ব বর্ণমালা আছে, যা এখনো মানুষের মুখে উচ্চারিত হয়। বিশ্বের স্বয়ংসম্পূর্ণ ভাষাগুলোর একটি হচ্ছে এই সিলটি ভাষা। শুধু যে ভাষাই আছে, তাই নয় তাদের নিজস্ব একটি বর্ণমালাও আছে। যার নাম ‘নাগরী লিপি’। দেব নাগরী লিপি এবং বাংলা লিপির সাথে সাদৃশ্য রেখে এই এই সিলটি নাগরী লিপির উদ্ভব ঘটে মধ্যযুগে। সিলেটের ইতিহাস, ঐতিহ্য, সংস্কৃতির এক উজ্জ্বল নিদর্শন ‘নাগরী লিপি’। কয়েক শতাব্দী জুড়ে শত শত বই-পুস্তক লেখা হয়েছে এই লিপিতে। নাগরী লিপির রয়েছে নিজস্ব অক্ষর, আছে আলাদা ব্যাকরণও।

সেই নিভু নিভু প্রদীপে যেন নতুন করে জ্বালানি দিলেন দুই তরুণ। যাদের হাত ধরে বর্তমান আধুনিকতার এই যুগে নাগরী লিপি পেয়েছে একটি পূর্ণাঙ্গ নিজস্ব কি-বোর্ড। সিলেটের বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ৩১তম ব্যাচের শিক্ষার্থী সাব্বির আহমদ শাওন ও নুরুল ইসলামের হাত ধরেই ‘Syloti Nagri Keyboard (সিলটি নাগরী কি-বোর্ড)’ অ্যান্ড্রয়েড কি-বোর্ড হিসেবে স্থান করে নিয়েছে গুগল প্লে-স্টোরে।

সময়ের আবর্তে নাগরী ভাষা এখন আর মানুষের মুখে স্থান পায় না। কিন্তু স্বতন্ত্র ভাষা নাগরীর সাথে সিলেটের যে গর্ব আর ঐতিহ্যের বন্ধন, সেটি আড়াল হওয়ার নয়। সেই ঐতিহ্যের কথা মাথায় রেখেই নাগরী বর্ণমালা দিয়ে কি-বোর্ড উদ্ভাবনের পথে হাঁটেন সাব্বির ও নুরুল। তাদের ভাষ্যে ‘এই কি-বোর্ড তৈরীতে উৎসাহিত হওয়ার প্রধান কারণ হচ্ছে আমাদের সিলেটি ঐতিহ্যকে সবার সামনে তুলে ধরা। নাগরী অক্ষরগুলো বিলুপ্তপ্রায়। অনেকে এই সম্পর্কে জানেও না যে আমাদের নিজস্ব অক্ষর রয়েছে। সবার সামনে সিলেটের এই স্বতন্ত্র ভাষাকে ফুটিয়ে তুলাটাই আমাদের প্রধান লক্ষ্য ছিল।’


নাগরী লিপির কি-বোর্ড তৈরীর আগে নিজেরা সিলটি ভাষা ও এর লিপি সম্পর্কে পড়াশোনা করেছেন সাব্বির ও নুরুল। কি-বোর্ড তৈরীর কাজে সহযোগিতা করেছেন একই বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক আখলাক উজ্জামান আশিক। কি-বোর্ড তৈরির পর ২০১৭ সালের ডিসেম্বরে গুগল প্লে-স্টোরে উন্মুক্ত করে দেন উদ্ভাবকরা।

বর্তমানে কি-বোর্ডটির ইংরেজি, নাগরী এবং বাংলা টু নাগরী লে-আউট রয়েছে। সাব্বির ও নুরুল বলছেন, ভবিষ্যতে বাংলা এবং ফোনেটিক লে-আউট দুটি তারা যুক্ত করবেন। হয়ত তাদের হাত ধরেই হারিয়ে যাওয়া সিলটি ভাষা ফিরে পাবে এর লিখিত রূপ। অ্যাপটি ডাউনলোড করতে পারবেন এখানে থেকে।

৪৫০১ পঠিত ... ১৯:৪২, ফেব্রুয়ারি ০৭, ২০১৯

আরও eআরকি

পাঠকের মন্তব্য

 

ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।

আইডিয়া

কৌতুক

রম্য

সঙবাদ

স্যাটায়ার


Top