রাস্তাঘাটে প্রতিদিন যে ১০ ধরণের রিকশাওয়ালা দেখা যায়

৩১৪৫পঠিত ...১১:১৫, ডিসেম্বর ২৯, ২০১৭

রিকশায় আমরা চড়ি। সিংগেল থাকলেও চড়ি, না থাকলেও চড়ি। প্রয়োজনে চড়ি, অপ্রয়োজনেও চড়ি। চলতে-ফিরতে এইসব চড়াচড়ির মাঝেও এমন কিছু নির্দিষ্ট প্রকারের রিকশাওয়ালা দেখা যায়, তা নিয়ে বিস্তারিত আলোচনায় এসেছে eআরকি গবেষক দল।

১. 'যামু না' রিকশাওয়ালা
উনাদের কিছু জিজ্ঞেস করাই যায় না। কোথায় যাবেন তা তো দূরের হিসাব, ডাক দিতে গেলেই তারা মাথা নেড়ে যাবার অপারগতা প্রকাশ করেন! উনারা কী কারণে যেন কোথাও যেতে চান না!

যাত্রী: মামা...
রিকশাওয়ালা: যামু না!

২. অতি উৎসাহী রিকশাওয়ালা
উনারা সচরাচর, 'মামা যাবেন?' প্রশ্নের উত্তরে খুব আগ্রহ নিয়ে হ্যাঁ বলেন, এবং পরবর্তী সমাচার নিজেই গড়গড় করে বলতে থাকেন।

যাত্রী: মামা যাবেন?
রিকশাওয়ালা: কই?
যাত্রী: মোহাম্মাদপুর
রিকশাওয়ালা: মোহাম্মাদপুরের কই? তাজমহল রোড? তাজমহল রোডের ওই কিনারায় নাকি? ওই কিনারায় গেলে কিন্ত মামা ভাড়া বেশি লাগবে...

৩. গন্তব্যস্থল জেনে না বলা রিকশাওয়ালা
এই গোত্রের রিকশাওয়ালাদের অবস্থান যামু না গোত্রের রিকশাওয়ালাদের থেকে এক ধাপ নিচে। ডাক দিলে জবাব দেন, কিন্ত এরপর গন্তব্যস্থল জেনে না করে দেন।

যাত্রী: ভাই, যাবেন?
রিকশাওয়ালা: যামু, কোথায়?
যাত্রী: জিগাতলা!
রিকশাওয়ালা: না ভাই, যাবো না তাহলে!

৪. অনুসন্ধিৎসু রিকশাওয়ালা
সবকিছু জানতে চান তারা।

যাত্রী: ভাই যাবেন?
রিকশাওয়ালা: কোথায় যাবেন?
যাত্রী: মোহাম্মাদপুর।
রিকশাওয়ালা: মোহাম্মাদপুরের কোথায়?
যাত্রী: নূরজাহান রোড।
রিকশাওয়ালা: নুরজাহান রোডের কোথায়?
যাত্রী: ইসলামিয়ায়।
রিকশাওয়ালা: ইসলামিয়ার কোনদিকে?
যাত্রী: (ক্লান্ত হয়ে) ভাই...? আপনি কি সত্যি যাবেন......?

৫. খালি রিকশাওয়ালা
তাদের রিকশা সারাজীবন খালিই থাকে, তারা যদি রিকশা টানেন খালিই টানতে থাকেন। তবু তারা কোনো যাত্রী নিতে চান না। এদের দেখেই বোধহয় রিকশাওয়ালাদের 'খালি' বলে ডাকবার ট্রেন্ড চালু হয়েছে!

৬. স্পিডস্টার রিকশাওয়ালা
রিকশার বদলে তারা যদি একটা রেসিং গাড়ি কিংবা রেসিং বাইক চালাতেন, তবে নির্ঘাত ফর্মুলা ওয়ান কিংবা মোটো জিপি থেকে এক-দুইটা পদক জিতে নিয়ে আসতেন।

৭. জ্যাম এড়ানো রিকশাওয়ালা
উনাদের যেখানেই যেতে বলা হোক না কেনো, তারা যেতে রাজি হন না, এবং কারণ দেখান- ওদিকে জ্যাম খুব!!

যাত্রী: মামা যাবেন, শ্যামলী?
রিকশাওয়ালা: না মামা, ওদিকে ম্যালা জ্যাম!

৮. দিকভ্রান্ত রিকশাওয়ালা
এই শ্রেণীর রিকশা চালকেরা গন্তব্যস্থলে যেতে যেতে পথ ভুলে যান...!

যাত্রী: মামা কী হইছে? দাঁড়ায় পড়লেন ক্যান?
রিকশাওয়ালা: না মামা, লালমাটিয়ার ব্লক ডি কই হঠাৎ মনে পড়তেছে না...

৯. 'ভাড়া বাড়ায় দিয়েন' রিকশাওয়ালা
এই গোত্রের রিকশাওয়ালারা দুই প্রকার হয়ে থাকেন। টাইপ ওয়ান- রিকশায় চড়বার আগেই ভাড়া বাড়িয়ে দেবার দাবি রাখেন, টাইপ টু- গন্তব্যস্থলে নামিয়ে দেবার পর মিনমিন করে ভাড়াটা 'একটু' বাড়িয়ে দেবার আবেদন জানান।

টাইপ ওয়ান-
রিকশাওয়ালা: মামা আজিমপুর যাবো, কিন্ত ভাড়া বিশটা টাকা বাড়ায় দিয়েন...!

টাইপ টু-
রিকশাওয়ালাঃ (নামায় দেবার পর, অতি ধীরে...) মামা, ভাড়াটা একটু বাড়ায় দিয়েন...যেই গরম...আর জ্যাম...মামা.........!

১০. হোমসিক রিকশাওয়ালা
এই গোত্রের রিকশাওয়ালারা সচরাচর খুব আগ্রহ নিয়ে যাত্রীর গন্তব্যস্থল জানতে চান, কিন্ত জানবার পর না করে দেন। কারণ ওদিকে তার বাসা না, এবং তিনি শুধুমাত্র তার বাসার দিকেই যেতে চান।

যাত্রী: মামা যাবেন, আসাদগেট?
রিকশাওয়ালা: না মামা ওদিকে যাবো না।
যাত্রী: ক্যানো ওদিকে কী সমস্যা?
রিকশাওয়ালা: আমার বাসা আদাবর মামা, ওদিকে যামু!

অলংকরণ: রাকিব রাজ্জাক

৩১৪৫পঠিত ...১১:১৫, ডিসেম্বর ২৯, ২০১৭

আরও eআরকি

পাঠকের মন্তব্য

 

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
    আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।

    কৌতুক

    গল্প

    রম্য

    সঙবাদ

    সাক্ষাৎকারকি

    স্যাটায়ার

    evolution22
    
    Top